অতিরিক্ত টিভি দেখা হৃদরোগের কারণ

|রূপ-কেয়ার ডেস্ক|

বর্তমান যান্ত্রিক জীবনে মানুষের বিনোদনের মাধ্যমের প্রায় সবগুলোই ঘর কেন্দ্রীক। এর ফলে খেলাধুলা এবং বাইরে ঘোরাঘুরির খুব একটা সুযোগ থাকেনা। আর এখনকার সময়ে পড়ালেখার পাশাপাশি বাচ্চাদের টেলিভিশন আর কম্পিউটার ছাড়া কিছুই করার থাকেনা। কিন্তু বেশি সময় ধরে টেলিভিশন দেখলে শিশুদের উপর শারীরিক ও মানসিক নানা ক্ষতিকর প্রভাব পড়ে। এ অভ্যাসের কারণে পরবর্তী জীবনে তাদের হৃদরোগ, উচ্চ রক্তচাপ ও ডায়াবেটিসে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি বাড়ে। সম্প্রতি অস্ট্রেলিয়ায় চালানো এক গবেষণা ফলাফলে এ তথ্য পাওয়া গেছে।

quote1ইউনিভার্সিটি অব সিডনি পরিচালিত জরিপে দেখা যায়, ছয় থেকে সাত বছর বয়সী যেসব শিশু বেশির ভাগ সময় টিভি দেখে তাদের চোখের পেছনে ধমনি সরু হয়ে যায়। ফলে বয়সকালে তাদের হৃদরোগ, উচ্চ রক্তচাপ ও ডায়াবেটিসে আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি বাড়ে। সিডনির ৩৪টি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছয় থেকে সাত বছর বয়সী দেড় হাজার শিক্ষার্থীর পর এ গবেষণা চালানো হয়।

এ গবেষণার প্রধান গবেষকের মতে,  ‘গবেষণা ফলাফলের ভিত্তিতে বলা যায়, শৈশবে অস্বাস্থ্যকর জীবন যাপন করলে পরবর্তী সময়ে হৃদরোগ ও উচ্চ রক্তচাপের ঝুঁকি বাড়তে পারে। টেলিভিশনের সামনে অতিরিক্ত সময় কাটালে নড়াচড়া কম হয়, অস্বাস্থ্যকর খাদ্যাভ্যাস তৈরি হয় এবং ওজন বাড়ে। টিভি দেখার পরিমাণ এক ঘণ্টা কমিয়ে যদি খেলাধুলা করা যায়, তাহলে শুয়ে-বসে থাকার ক্ষতিকর দিকটি এড়ানো সম্ভব। মুক্তভাবে খেলাধুলার সুযোগ থাকা উচিত এবং স্কুলগুলোতে সপ্তাহে অন্তত দুই ঘণ্টা শারীরিক কসরত বাধ্যতামূলক করা উচিত।’’ গবেষণা প্রতিবেদনটি আমেরিকান হার্ট অ্যাসোসিয়েশনের সাময়িকীতে ছাপা হয়েছে।

facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedin