এবার হৃত্বিক-কাঙ্গানার অন্তরঙ্গ ছবি ফাঁস

rupcare_hrittik kangana2

বিদ্বেষের আগুন এখনো নেভেনি হৃত্বিক রোশান এবং কাঙ্গানা রানাওয়াতের মধ্যে। সে আগুনে ঘি ঢালতেই যেন এবার ইন্টারনেটে ছড়িয়ে পড়লো এই দুই তারকার ফাঁস হওয়া অন্তরঙ্গ এক ছবি।

কাঙ্গানা বরাবরই দাবী করে এসেছেন তার এবং হৃত্বিকের মধ্যে একসময়ের প্রেমের সম্পর্ক, আর বারবার সে দাবীকে উড়িয়ে দিয়েছেন ‘কৃশ’ তারকা হৃত্বিক। এই ছবি ফাঁসের ঘটনায় পাল্লা কিছুটা ভারী হল কাঙ্গানার পক্ষে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ফাঁস হওয়া ছবিটিতে একসঙ্গে দেখা গিয়েছে হৃত্বিক-কাঙ্গানাকে, যেখানে কাঙ্গানাকে পেছন থেকে আলিঙ্গনে অন্তরঙ্গ হতে চাইছেন হৃত্বিক। হিন্দুস্থান টাইমস বলছে, ছবিটি কে ফাঁস করেছে জানা না গেলেও এটি প্রায় ছ’বছরের পুরনো বলে ধারণা করা হচ্ছে।

ছবিটি কাঙ্গানা রানাওয়াতের আইনজীবীর জন্য উপযুক্ত একটি প্রমাণ হতে পারে, কেননা বারবার হৃত্বিক পক্ষের আইনজীবীরা দাবী করে এসছেন, হৃত্বিক-কাঙ্গানার সম্পর্কটি ছিল সম্পূর্ণই ‘পেশাদার’। ‘কৃশ’-এর সেট থেকে তাদের পর্দা রসায়ন বাস্তব জীবনে ঘটেনি, এমন বিবৃতিই পুনরাবৃত্তি করেছেন হৃত্বিক। অপরদিকে কাঙ্গানার এক ঘনিষ্ঠ বন্ধুর মতে, দুজনের প্রেমের শুরুটা ‘কৃশ টু’ সিনেমার শুটিং থেকেই।

rupcare_hrittik kangana1

অবশ্য কে ফাঁস করেছে জানা না গেলেও ছবিটি ‘কৃশ টু’ নির্মাণের আগে এক পার্টিতে তোলা ছবি বলে জানিয়েছে ‘টাইমস অফ ইন্ডিয়া’। কাঙ্গানার পক্ষ থেকে হৃত্বিককে ‘সাবেক প্রেমিক’ বলার এক জোরালো প্রমাণ হয়ে দাঁড়াতে পারে ছবিটি বলে ধারণা করা হচ্ছে।

দুজনের বিবাদের সূত্রপাত হয় এ বছরের জানুয়ারিতে, যখন কাঙ্গানা এক সাক্ষাৎকারে হৃত্বিককে সম্বোধন করেন তার ‘সাবেক প্রেমিক’ হিসেবে। ২৯ বছর বয়সী অভিনেত্রীর দাবীকে অস্বীকার করে সেবার হৃত্বিক জানান, কাঙ্গানার চাইতে একজন পোপের সঙ্গে সম্পর্ক গড়তে অধিক স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করবেন তিনি। দ্রুতই ব্যাপারটি গড়ায় আদালত পর্যন্ত, যখন হৃত্বিক আনুষ্ঠানিকভাবে কাঙ্গানাকে তার কাছে ক্ষমা চাইতে বলে একটি আইনি নোটিশ পাঠান। তবে কাঙ্গানাও চুপ ছিলেন না, উলটো ‘কুইন’ তারকা নিজেই আরও একটি আইনি নোটিশ পাঠিয়েছেন হৃত্বিককে।

ইমেইল আইডি জালিয়াতের ব্যাপারেও কাঙ্গানাকে সম্প্রতি অভিযুক্ত করেছেন হৃত্বিক। দাবী করেছেন, তারই এক ভূয়া অ্যাকাউন্ট থেকে কাঙ্গানার সঙ্গে যোগাযোগ রক্ষা করা হয়েছে। ওদিকে কাঙ্গানা দাবী করেছেন অ্যাকাউন্টটি শুধু তার সঙ্গে যোগাযোগের জন্যই খোলা হয়েছিল। এও জানান, মেইলগুলো ওলটপালট করার জন্য হৃত্বিক তার অ্যাকাউন্টও হ্যাক করেছিলেন। নিজের দাবী আরও জোরালোভাবে উত্থাপনের জন্য নিজের ইলেক্ট্রনিক ডিভাইসের ফরেনসিক পরীক্ষা করানোর প্রস্তুতি নিচ্ছেন কাঙ্গানা। তবে, এ দুজনের কার দাবী সঠিক সেটা জানার জন্য হয়তো আরও বেশখানিক সময় অপেক্ষা করতে হবে।

facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedin