নগরদোলা ও রঙ এর বৈশাখী আয়োজন

|রূপ-কেয়ার ডেস্ক|

বাংলাদেশের মৌসুমের প্রায় পুরোটা জুড়ে থাকে গরম। তাই পহেলা বৈশাখ উপলক্ষ্যে যত পোশাক বের হয়, তা সাধারণত গরমকালে দীর্ঘমেয়াদে পরার উপযোগি করেই তৈরি করা হয়। এবারও অত্যাধিক গরম মাথায় রেখে ফ্যাশন হাউজগুলো আরামদায়ক পোশাকের সম্ভার সাজিয়েছে। দেশের অন্যতম ফ্যাশন হাউজ নগরদোলা ও রঙ তাদের বৈশাখী আয়োজনে নিজস্ব থিমের পাশাপাশি এই বিষয়টিও মাথায় রেখেছে। আসুন তাদের বৈশাখী আয়োজন দেখে নিই।

নগরদোলা

rupcare_nagordola5


লাল রং মূখ্য করে সহযোগী রংগুলোর বর্ণীল উপস্থাপনা রয়েছে তাদের পোশাকে। চিরাচরিত লাল ও সাদার সঙ্গে কোরা, মেরুন, হলুদ, কমলা, বেগুনি, সবুজ, কলাপাতা রংয়ে সেজেছে এবারের নগরদোলার পোশাক।
সালোয়ার কামিজে ব্যবহার করা হয়েছে ব্লকপ্রিন্ট ও স্ক্রিন প্রিন্ট। বৈশাখী আয়োজনে বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী হাতের কাজ বা কাঁথাস্টিচের ব্যবহার রয়েছে উল্লেখ করার মতো। মোটিফ হিসেবে এসেছে সন্দেশের বিভিন্ন ছাঁচ।

কাট-ছাঁটে ত্রয়ী’র পোশাকগুলোতে তিন বা তথোধিক রং এর ব্যবহার করা হয়েছে পরিমিতভাবে।
বৈশাখে যেহেতু রংয়ের অনেক ব্যবহার হয় তাই নগরদোলা এবারের বৈশাখি আয়োজনে রংয়ের গ্যারান্টি প্রদান করছে।

সিঙ্গেল কামিজ এবং কূর্তীর মূল্য ৯৯০-১,১৯০ টাকা। সালোয়ার কামিজ ১,৪৫০-২২৯০ টাকা। পাঞ্জাবি ৭৫০-১,২৫০ টাকা। ফতুয়া ৫৫০-৭৫০ টাকা।

রঙ

rupcare_rang1
বাংলাদেশে অনেকদিনের পোশাক সংস্কৃতির চর্চায় পুরুষের ‘লুঙ্গির’ সংযোজন সর্বজননন্দিত। ‘লুঙ্গি’ শিল্পের সুদীর্ঘ অভিযাত্রায় তাঁতশিল্পের বিশাল ভূমিকা রয়েছে।

ঐতিহ্যবাহী লুঙ্গির মোটিফ এবারের বৈশাখে নানান শাড়ি, পাঞ্জাবি, ফতুয়া, সালোয়ার-কামিজ, কুর্তা, টি-শার্ট, কটি, টুপি, ব্যাগ, গহনাসহ ইত্যাদিতে বিভিন্নভাবে ব্যবহার করা হয়েছে। বৈশাখয়ের সময় যেহেতু প্রচন্ড গরম থাকে তাই পোশাকগুলোতে বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই আরামদায়ক পাতলা সুতি কাপড় ব্যবহার করা হয়েছে। স্বাভাবিকভাবে বৈশাখের রং বলতে যে সকল উজ্জ্বল রং চোখের সামনে ভেসে উঠে, যেমন- লাল, কালো, হলুদ, নীল, বেগুনি, মেজেন্টা, সাদা প্রভৃতি ছাড়াও গ্রামবাংলার উজ্জ্বল রংগুলো ব্যবহার হয়েছে পোশাকেগুলোতে। কাজের মাধ্যম হিসেবে এসেছে ব্লক-স্প্রে, স্ক্রিনপ্রিন্ট, এমব্রয়ডারি, কাটওয়ার্ক, কারচুপি, বাটিক ইত্যাদি।

এই আয়োজন নিয়ে ‘বৈশাখের রঙ’ শীর্ষক প্রদর্শনী চলবে ‘রঙ’ এর সকল বিক্রয়কেন্দ্রে।

নগরদোলা ও রঙের বৈশাখী আয়োজনের একাংশ:

facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedin