মেকআপের ধরণ বুঝে কোন রঙে ঠোঁট রাঙাবেন, জেনে নিন

rupcare_lipstick according to makeup

চোখের মেইকআপ, মেইকআপের বেইজ ইত্যাদির সঙ্গে মানিয়ে ঠোঁট রাঙাতে হয়। নইলে পুরো খাটনি যাবে বৃথা।

কখনও লাল, কখনও গোলাপি আভায় ঠোঁট সাজাতে মেইকআপের রংয়ের ব্যবহার নিয়ে জানা প্রয়োজন। সাজসজ্জাবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে মেইকাপের সঙ্গে মিলিয়ে নির্দিষ্ট ঠোঁটের রংগুলো কখন ব্যবহার করলে ভালো হয় সেই বিষয়ে পরামর্শ দেওয়া হয়।

লাল:

ঠোঁটে লাল রং ব্যবহারের প্রাধান্য কখনও পুরান হওয়ার নয়। গাঢ় কালো আইলাইনারে টানা চোখ, ঘন করে লাগানো মাস্কারার সঙ্গে লাল লিপস্টিক দারুণ মানানসই। লাল লিপস্টিকের সঙ্গে চোখের সাজ এবং অন্যান্য মেইকআপ যত হালকা হয় ততই ভালো। এতে ঠোঁট নজর কাড়বে বেশি।

গোলাপি:

হালকা গোলাপি বা বেবি পিঙ্ক রংটি ফর্সাদের সঙ্গে বেশি মানানসই। অন্যদিকে বাদামি গায়ের রংয়ের সঙ্গে মানিয়ে যায় গাঢ় গোলাপি। গোলাপি লিপস্টিক ব্যবহারের ক্ষেত্রে মেইকআপের প্রতিটি ক্ষেত্রেই গোলাপি আভা থাকা ‍উচিত। চোখের সাজ, ব্লাশ এবং লিপস্টিক প্রতি ক্ষেত্রেই গোলাপি রংয়ের ভিন্ন ভিন্ন শেইড ব্যবহার করা যেতে পারে।

বেগুনি:

দারুণ উজ্জ্বল একটি রং। তাই লালের মতো এই রং ব্যবহারের ক্ষেত্রেও মুখের অন্যান্য রং যত হালকা রাখা যায় ততই ভালো। হালকা ফাউন্ডেশন, চোখে অল্প কাজলের ছোঁয়া এবং প্রয়োজনে ত্বকের রংয়ের আইশ্যাডো দিয়ে চোখ সাজিয়ে নেওয়া যেতে পারে। গালে হালকা কমলা বা বাদামি ব্লাশ আর ঠোঁটে বেগুনি লিপস্টিকে মেইকআপ পূর্ণতা পাবে।

কমলা:

চকচকে মেইকআপের সঙ্গে দারুণ মানানসই রং কমলা। ঠোঁটে কমলা রংয়ের লিপস্টিক ব্যবহার করলে গালে ব্রোঞ্জার ব্যবহার করতে হবে। তাছাড়া গালের উঁচু অংশে, নাকের উপর, থুতনিতে এবং কপালে হালকা সোনালি ধাপের হাইলাইটার ব্যবহারে মেইকআপে আসবে ‘সানকিসড লুক’। এই মেইকআপের শেষে গালে ব্লাশ বুলিয়ে নিতে ভুললে চলবে না।

facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedin