মোঘলাই রান্না: শামি কাবাব

|খালেদা খানম|

rupcare_shami kabab2

মুঘল আমল শেষ হয়েছে বহুদিন আগে। বাঙালী মুঘল আমলের আর কিছু ধরে রাখুক চাই না রাখুক, মোঘলাই খাবারের আকর্ষণ মনে হয় আমাদের আজীবনেও শেষ হবে না। বিরিয়ানী থেকে শুরু করে কাবাব কোনটাই যেন আমাদের উৎসব আয়োজন থেকে বাদ না পরে সেজন্য আমরা সর্বদা সচেষ্ট থাকি।
তাই আজকে আমি আপনাদের জন্য নিয়ে আসছি বাঙালী ফ্লেভারে মোঘলাই স্বাদ – শামি কাবাব।

যা যা লাগবে
গরু বা খাসীর মাংসের কিমা- ২৫০ গ্রাম
পানিতে ভেজানো মসুর ডাল- ৪ টেবিল চামচ
সিদ্ধ আলু- ১টা
জিরা – আধ চা চামচrupcare_shami kabab2
মৌরি- ১ চা চামচ
ধনে- ১ চা চামচ
ছোট এলাচ- ২টো
শুকনো মরিচ- ৬টা
ডিম- ১টা
রসুন- ৪ কোয়া
পুদিনা পাতা কুচি- ২ টেবিল চামচ
ধনেপাতা কুচি- ২ টেবিল চামচ
কাঁচা মরিচ- ২টা
আদা কুচি- ১ চা চামচ
জিরা গুঁড়া- আধ চা চামচ
ধনে গুঁড়া- আধ চা চামচ
তেল- পরিমান মতো
লবণ- স্বাদ মত

যেভাবে বানাবেন
প্রথমে ডেকচিতে মাংসের কিমা, মসুর ডাল, জিরা, ধনে, মৌরি, এলাচ, শুকনো মরিচ, আদা কুচি, রসুন, লবণ দিয়ে ২ কাপ পানি দিয়ে সিদ্ধ করে নিন। পানি শুকিয়ে গিয়ে মাংস নরম হয়ে এলে চুলা থেকে নামিয়ে ঠান্ডা করে নিন। এবারে সিদ্ধ মাংসের মধ্যে আলুসিদ্ধ মিশিয়ে পুরো মিশ্রণ চপার (বড় ছুরি) দিয়ে মিহি করে কুচিয়ে নিন। এবারে ওই মিশ্রণে ডিম, ধনেপাতা কুচি, পুদিনা পাতা কুচি, কাঁচামরিচ, জিরা গুঁড়া, ধনে গুঁড়া ভাল করে মিশিয়ে নিন। মিশ্রণ অল্প পরিমানে নিয়ে হাতের চাপে কাবাব আকারে গড়ে নিন। ফ্রাইং প্যানে ৩-৪টা কাবাব পাশাপাশি রেখে বাদামি করে ভেজে নিন। দু-পিঠই ভাল করে ভাজবেন।

ভাজা হয়ে গেলে কিচেন পেপারের বা টিস্যু পেপারের ওপর রেখে কাবাব থেকে অতিরিক্ত তেল টানিয়ে নিন। কাঁচামরিচ, ধনেপাতা, পেঁয়াজের রিং ও লেবু দিয়ে গার্নিশ করে পুদিনার চাটনির সঙ্গে পরিবেশন করুন।

facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedin