রাগ কমানোর ১০টি উপায়

|রূপ-কেয়ার ডেস্ক|

rupcare_control anger

মানুষের সাথে মানুষের সম্পর্ক খারাপ হয়ে যেতে পারে যেসব কারণে তার অন্যতম হলো রাগ। রাগ মুহূর্তেই বাড়িয়ে দিতে পারে দু বন্ধুর মধ্যকার দূরত্ব। হঠাত্ করেই আপনাকে একা করে দিয়ে হারিয়ে যেতে পারে আপনার কাছের মানুষগুলো। আর তাই এই রাগকে রাখতে হবে নিয়ন্ত্রণে। অযথা রাগ না করে ঠাণ্ডা মাথায় ভাবলে অনেক সমস্যারই সমাধান করা যায় খুব সহজেই।

মাত্র ১০টি পন্থা অবলম্বন করে আপনি শিখে নিতে পারেন আপনার এই রাগ নিয়ন্ত্রণের কৌশলগুলো:

# মনকে শান্ত রাখার চেষ্টা করুন, এক থেকে দশ পর্যন্ত উল্টো করে গুনতে পারেন, তাহলে মস্তিষ্ককে কিছুটা অন্যদিকে ব্যস্ত রাখা যাবে।

# হুট করে কোনো কথা বা কাজ করে বসবেন না, সময় নিন, প্রয়োজন হলে সেই মানুষটার সাথে কিছুক্ষণ কথা বন্ধ রাখুন অথবা রাগের কারণটি থেকে নিজের মনকে অন্যদিকে সরিয়ে নিন।

# যখন আপনি শান্ত হয়ে গেলেন, এবার আপনার রাগের কারণগুলো তার সামনে তুলে ধরুন, ততক্ষণে অপজনের মাথাও ঠাণ্ডা হয়ে যাবে, সে ভালোভাবে আপনার কথা বুঝতে পারবে।

# এক্সারসাইজ করতে পারেন, অথবা কিছুটা পথ হাঁটতে পারেন, কিংবা ওয়েট লিফটিং করতে পারেন।

# আপনি যখন রেগে আছেন স্বাভাবিকভাবেই আপনার মধ্যে নমনীয়তা কাজ করবে না, আর তাই হঠাত্ করে এমন কিছু কথা বলে ফেলতে পারেন যা অন্যের কষ্টের কারণ হতে পারে, তাই কোনো কথা না বলাই ভালো।

# যেকোনো সমস্যার সমাধান অবশ্যই আছে, একটু ঠাণ্ডা মাথায় চিন্তা করলেই সেটা বের করা যায়।

# নিজেকে নিয়ে বেশি হিসাব করতে গেলে রাগ আরও বাড়বে, তাই তাত্ক্ষণিক ব্যাপারটা মেনে নিলে সমস্যা অনেকটা কমে যায়।

# টেনশনে সিগারেট জাতীয় কিছু খাওয়া ঠিক না, তাকে মনটা আরও বিক্ষিপ্ত হয়ে উঠে।

# টেনশন কমানোর জন্য খানিকটা হাসি ঠাট্টা করা যেতে পারে, তাতে মনটা হালকা হয়ে যায়।

# সবচেয়ে ভালো উপায় হলো মেডিটেশন।

তথ্যসূত্র: ইত্তেফাক

facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedin