সুন্দর চুলের জন্য কিছু পুষ্টিকর খাবার

|রূপ-কেয়ার ডেস্ক|

rupcare_food for hair2

চুলের নানান সমস্যায় ভুগে থাকেন অনেকেই। চুলের আগা ফেটে দু ভাগ হয়ে থাকে, চুলের ঝলমলে ভাব দূর হয়ে রুক্ষতা ভর করে, আবার চুল পরে যায় অনেক। এতে চুল হয়ে যায় বিশ্রী। কোনো ধরণের স্টাইলই মানায় না এই ধরণের চুলে। অনেক ক্ষেত্রে নামীদামী হেয়ার প্রোডাক্টেও কাজ হয় না। তখন আমরা সবাই বেশ বিপদে পড়ি। কিন্তু আমাদের ভুলের কারনেই হচ্ছে এই সমস্যা। এইসকল সমস্যার মূলে রয়েছে চুলের পুষ্টিহীনতা। সব সমস্যার জন্য আমাদের চুলকে দিতে হবে পুষ্টিকর কিছু খাবার।

ডিম
ভিটামিন বি এসেনশিয়াল এবং বায়োটিনে ভরপুর ডিম চুল বৃদ্ধির কাজে সহায়তা করে এবং মাথার ত্বক ভালো রাখে। চুলের স্বাস্থ্য রক্ষায় প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় রাখুন ডিম। এছাড়াও চুলে লাগাতে পারেন ডিমের হেয়ার মাস্ক। ২ টি ডিমের সাদা অংশ এবং ৪ টেবিল চামচ অলিভ অয়েল ভালো করে ফেটিয়ে ঘন একটি পেস্টের মত তৈরি করে চুলে লাগিয়ে রাখুন ৩০ মিনিট। এরপর ভালো করে চুল ধুয়ে ফেলুন। ব্যস চুলের অনেক সমস্যার সমাধান হবে।

পালং শাক
পালং শাকে রয়েছে প্রচুর পরিমানে আয়রন এবং ফোলাইট। এই সবুজ শাকটি নিয়মিত খেলে আমাদের দেহে হিমোগ্লোবিনের মাত্রা বাড়ে এবং এতে চুলের ফলিকলে অক্সিজেন পৌছায়। এতে করে আমাদের চুল দ্রুত বাড়ে এবং মাথার ত্বক ঠিক থাকে।

ক্যাপসিকামrupcare_food for hair1
লাল, হলুদ এবং সবুজ ক্যাপসিকাম ভিটামিন সি এর খুব ভালো উৎস। ভিটামিন সি চুলের বৃদ্ধিতে সহায়তা করে এবং চুলের ভঙ্গুরতা দূর করতে সাহায্য করে। চুলের সুস্থতায় সালাদ এবং রান্নায় ক্যাপসিকাপ রাখার অভ্যাস করুন।

ডাল
ডাল উদ্ভিজ্জ প্রোটিন যা আমাদে দেহের কোষ বৃদ্ধিতে কাজ করে। এটি চুলের কোষ বৃদ্ধিতে অনেক সহায়তা করে। এতে চুল দ্রুত বাড়ে এবং চুলের উজ্জলতা বৃদ্ধি পায় ও রুক্ষতা দূর হয়। তাই খাদ্যতালিকায় ডাল রাখুন।

মিষ্টি আলু
মিষ্টি আলুতে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন এ এবং বিটা ক্যারোটিন রয়েছে যা চুল পরা রোধ করে। তাই মিষ্টি আলু খান চুল পরা রোধ করতে।

তথ্যসূত্র: প্রিয় লাইফ

facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedin